Logo
শিরোনাম :
উখিয়ায় ২জন চেয়ারম্যান প্রার্থীসহ ১৪জনের মনোনয়ন প্রত্যাহার ক্লাইমেট চেন্জে বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ বাংলাদেশ : স্কাস চেয়ারম্যান জেসমিন প্রেমা উখিয়ায় ৬ খুনের ঘটনায় গ্রেফতার ৪ উখিয়ায় সমাজ কল্যাণ ও উন্নয়ন সংস্থা (স্কাস)’র কমিউনিটি রিসোর্স সেন্টার উদ্বোধন জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরীর সর্মথনে এক নির্বাচনী মত বিনিময় সভা অনুষ্ঠিত ৬ রোহিঙ্গা হত্যার ঘটনায় ১০ জন আটক রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ৬ খুনের ঘটনায় থানায় মামলা বিএফইউজের নেতৃত্বে ফারুক-দীপ, সর্বোচ্চ ভোটে সদস্য হলেন দেশ রূপান্তরের সুইটি রোহিঙ্গা নেতা মহিবুল্লাহ হত্যায় সরাসরি অংশ নিয়েছে আজিজুল চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী জামী চৌধুরীর ব্যাপক গণসংযোগ
নোটিশ :

আমাদের ভুবনে আপনাকে স্বগতম>>তথ্য নির্ভর সংবাদ পেতে  সাথে থাকুন  ধন্যবাদ।

নিরাপদ সড়ক দিবস আজ: দেশে সড়ক দুর্ঘটনায় দিনে মৃত্যু ৬৫

ডেস্ক রিপোট   / ১২০ বার
আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ২২ অক্টোবর, ২০২০

আজ ‘জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস’। নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) দীর্ঘ ২৭ বছর ধরে সড়ককে নিরাপদ করার লক্ষ্যে আন্দোলন করে আসছে। সড়ককে নিরাপদ করার আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় প্রতি বছর ২২ অক্টোবর জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস পালিত হয়। এবছরও ‘মুজিব বর্ষের শপথ, সড়ক করব নিরাপদ’ এ প্রতিপাদ্যে চতুর্থবারের মতো দেশে পালিত হচ্ছে নিরাপদ সড়ক দিবস। এবার বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে কোনো র‌্যালি হবে না।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গত বছরের একটি গবেষণায় দেখা যায়, সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণহানির দিক থেকে এশিয়ায় বাংলাদেশের অবস্থান সপ্তম। বাংলাদেশের ওপরে আছে চীন, ভারত, ইন্দোনেশিয়া, পাকিস্তান, থাইল্যান্ড ও ভিয়েতনাম। কিন্তু এই দেশগুলোতে যানবাহনের সংখ্যা বাংলাদেশের তুলনায় কয়েক গুন বেশি। আর সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণহানির দিক থেকে বিশ্বে বাংলাদেশের অবস্থান ১৩তম।

সম্প্রতি সেন্টার ফর ইনজুরি প্রিভেনশন এন্ড রিসার্চ বাংলাদেশ (সিআইপিআরবি)-এর একটি জরিপে দেখা যায়, বাংলাদেশে প্রতিদিন সড়ক দুর্ঘটনায় ৬৫ জন নিহত হয়। আর এটি বিভিন্ন দুর্ঘটনায় নিহতদের সংখ্যার মধ্যে সর্বোচ্চ। ‘বাংলাদেশ হেলথ ইনজুরি সার্ভে (বিএইচআইএস) একটি জরিপ পরিচালনা করে। সেই জরিপের পরিচালক ফারুক আহমেদ ভূঁইয়া ডয়চে ভেলেকে বলেছেন, প্রতিবছর বাংলাদেশে সড়ক দুর্ঘটনায় ২৩ হাজার ১৬৬ জন নিহত হন। আর তাতে প্রতিদিন গড়ে নিহতের সংখ্যা ৬৪ জন। গত সাড়ে তিন বছরে সারা দেশে সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন ২৫ হাজার ১২০ জন। এসব দুর্ঘটনার ৯০ শতাংশ ঘটছে চালকের বেপরোয়া মনোভাব ও অতিরিক্ত গতির কারণে। এসব সড়ক দুর্ঘটনায় হতাহত ব্যক্তিদের বেশির ভাগই শিশু, তরুণ ও কর্মক্ষম ব্যক্তি। এই দুই শ্রেণিকে দেশের ভবিষ্যৎ ও অর্থনীতির মূল শক্তি হিসেবে বিবেচনা করা হয়। প্রতিদিন ১৪টি শিশু সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হলেও প্রাপ্তবয়স্ক নিহত হন ৫০ জন। নিহতের হিসেবে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাপ্ত বয়স্ক নিহতের সংখ্যা সর্বোচ্চ। সড়ক দুর্ঘটনা এবং এর প্রভাবে ক্ষয়ক্ষতির আর্থিক পরিমাণ বছরে প্রায় ৪০ হাজার কোটি টাকা।

২৭ বছর আগে বান্দরবানে স্বামী ইলিয়াস কাঞ্চনের কাছে যাবার পথে চট্টগ্রামের চন্দনাইশে এক সড়ক দুর্ঘটনায় জাহানারা কাঞ্চন নিহত হন। রেখে যান অবুঝ দুটি শিশু সন্তান জয় ও ইমাকে। ইলিয়াস কাঞ্চন সে সময় সিনেমার শুটিংয়ে বান্দরবান অবস্থান করছিলেন। স্ত্রীর অকাল মৃত্যুতে দু’টি অবুঝ সন্তানকে বুকে নিয়ে ইলিয়াস কাঞ্চন নেমে আসেন পথে। পথ যেন হয় শান্তির, মৃত্যুর নয়-এই স্লোগান নিয়ে গড়ে তোলেন একটি সামাজিক আন্দোলন ‘নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা)’।

আজ ২২ অক্টোবর জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস ও জাহানারা কাঞ্চনের ২৭তম মৃত্যুবার্ষিকী। যার অকাল মৃত্যুতে সড়ককে নিরাপদ করার এই সামাজিক আন্দোলনের জন্ম। ২০১৭ সালের ৫ জুন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রীসভার বৈঠকে ২২ অক্টোবরকে জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস হিসেবে পালনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ ও অনুমোদন করা হয়। একই বছরের ২২ অক্টোবর বাংলাদেশে প্রথম জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস পালিত হয়।

চট্টগ্রামে কর্মসুচি :

এবারে বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে কোনো র‌্যালি হবে না। তবে বিআরটিএ’র উদ্যোগে আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় এলজিইডি ভবনে দিবসটি উপলক্ষে একটি আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হবে। এতে প্রধান অতিথি থাকবেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ ইলিয়াস হোসেন। এছাড়াও বেলা ২টায় চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের বঙ্গবন্ধু হলে নিরাপদ সড়ক চাই মহানগর কমিটির উদ্যোগে গাড়ি চালকদের সচেতনতা ও দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে গাড়ি চালক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর