Logo
শিরোনাম :
উখিয়ায় ২জন চেয়ারম্যান প্রার্থীসহ ১৪জনের মনোনয়ন প্রত্যাহার ক্লাইমেট চেন্জে বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ বাংলাদেশ : স্কাস চেয়ারম্যান জেসমিন প্রেমা উখিয়ায় ৬ খুনের ঘটনায় গ্রেফতার ৪ উখিয়ায় সমাজ কল্যাণ ও উন্নয়ন সংস্থা (স্কাস)’র কমিউনিটি রিসোর্স সেন্টার উদ্বোধন জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরীর সর্মথনে এক নির্বাচনী মত বিনিময় সভা অনুষ্ঠিত ৬ রোহিঙ্গা হত্যার ঘটনায় ১০ জন আটক রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ৬ খুনের ঘটনায় থানায় মামলা বিএফইউজের নেতৃত্বে ফারুক-দীপ, সর্বোচ্চ ভোটে সদস্য হলেন দেশ রূপান্তরের সুইটি রোহিঙ্গা নেতা মহিবুল্লাহ হত্যায় সরাসরি অংশ নিয়েছে আজিজুল চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী জামী চৌধুরীর ব্যাপক গণসংযোগ
নোটিশ :

আমাদের ভুবনে আপনাকে স্বগতম>>তথ্য নির্ভর সংবাদ পেতে  সাথে থাকুন  ধন্যবাদ।

চাকরির নামে প্রতারণা: ৫ প্রতারক গ্রেফতার

রিপোর্টার : / ১২২ বার
আপডেট সময় : সোমবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০

হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের তৃতীয় টার্মিনালে চাকরি দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে বিভিন্ন মানুষের কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে একটি চক্রের পাঁচ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) অর্গানাইজড ক্রাইম বিভাগ।

চাকরি প্রত্যাশী অসহায় সাধারণ মানুষদের একটি কোম্পানির ভুয়া ওয়ার্ক অর্ডার দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে প্রতারণা করে আসছিল চক্রের গ্রেফতার সদস্যরা।

ভুক্তভোগীদের অভিযোগ ও গোপন তথ্যের ভিত্তিতে গত রোবরার (৬ সেপ্টেম্বর) বিকেলে রাজধানীর বনানীর ২৭ নম্বর রোডের এ ব্লকের ৪৫ নম্বর ভবনের ষষ্ঠ তলায় এশিয়ান ট্রাভেলস অ্যান্ড ট্যুরস নামে একটি প্রতিষ্ঠানে অভিযান চালিয়ে প্রতারক চক্রের সদস্যদের গ্রেফতার করে সিআইডি।

সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে সিআইডির অর্গানাইজড ক্রাইম বিভাগের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) জিসানুল হক বাংলানিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

প্রতারক চক্রের গ্রেফতার সদস্যরা হলেন- প্রতিষ্ঠানের অফিস সহকারী গোলাম মাজেদ (৫০), নারায়ণ সরকার (৩৫), মো. মেহেদী (১৯), মো. ইমতিয়াজ (৩১) ও মো. এনায়েত উল্লাহ (৪০)। এসময় তাদের কাছ থেকে একাধিক ভুয়া নিয়োগপত্র এবং প্রার্থীদের কাছ থেকে নেওয়া বিভিন্ন ব্যাংকের চেক, বিভিন্ন ভুয়া মেডিক্যাল সনদপত্র, ভুয়া ডাক্তারের সিলমোহর, প্রার্থীদের আবেদনপত্র ও হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের তৃতীয় টার্মিনালে লোক নিয়োগের ভুয়া ওয়ার্ক অর্ডার জব্দ করা হয়।

এএসপি জিসানুল হক বলেন, প্রতারক চক্রের সদস্যরা বিভিন্ন অনলাইনে নিয়োগ বিজ্ঞাপন দিয়ে বিমানবন্দরের তৃতীয় টার্মিনালে কাজের জন্য নিয়োগ দেওয়ার নামে সাধারণ মানুষের কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা নেয়। এরপর নানা টালবাহানা করে ভুক্তভোগীদের একটি কোম্পানির ভুয়া ওয়ার্ক অর্ডার দিয়ে প্রতারণা করে আসছিল।

এশিয়ান ট্রাভেলস অ্যান্ড ট্যুরস প্রতিষ্ঠানের মালিক আশরাফ খান ওরফে সুলতান মাহমুদের নের্তৃত্বে এ চক্রটি দীর্ঘদিন ধরে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করে আসছিল। প্রতারক চক্রের পাঁচ সহযোগীকে গ্রেফতার করা সম্ভব হলেও চক্রের মূলহোতা আশরাফ খান পলাতক রয়েছেন।

গ্রেফতার আসামিদের বিরুদ্ধে বনানী থানায় প্রতারণার অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়েছে। প্রতারক আশরাফ খানকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলেও জানান তিনি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর