দুর্নীতির মূলোৎপাটন বেশ কঠিন। তারপরও চেষ্টা করে যাচ্ছে সরকার। সংসদে বাজেট অধিবেশনের সমাপনি বক্তব্যে এ কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এসময় সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে সবার প্রতি আহ্বানও জানান তিনি।

স্বাস্থ্য খাতে দুর্নীতি নিয়ে বিরোধী দলীয় উপনেতার প্রশ্নের উত্তরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, সরকারই দুর্নীতিবাজদের ধরছে, আইনের আওতায় আনছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, করোনা মোকাবেলায় সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছে সরকার। আর সেজন্য আর্থিক বরাদ্দে কোনো কার্পণ্য করা হয়নি। আর এনিয়ে যে দুর্নীতির অভিযোগ আসছে, তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থাও নিচ্ছে সরকার।তিনি বলেন, এবারের বাজেট পুরোপুরি বাস্তবায়ন সম্ভব হবে না। তবে তা অর্থনৈতিক অগ্রগতিতে ভূমিকা রাখবে। বিপর্যয়ের মধ্যেও জীবন থেমে থাকে না। যদি অর্থনৈতিক অবস্থা ভালো হয়, তখন দেশবাসী এর সুফল পাবে। সে কারণেই অর্থনীতি গতিশীল রাখতে কাজ করে যাচ্ছে সরকার। মহামারির মধ্যেই বাজেট অধিবেশন ডাকা হয়েছে। উদ্দেশ্য ছিলো দেশের অর্থনৈতিক অগ্রগতি ধরে রাখা।প্রধানমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার আগে দুর্নীতিটাই নিয়ম ছিলো। সেটি শুদ্ধ করার চেষ্টা চলছে।টেস্ট ও চিকিৎসায় ঝুঁকি নিয়ে কাজ করা পেশাজীবীদের ধন্যবাদ জানান প্রধানমন্ত্রী। করোনা মোকাবেলায় সরকারের সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনগুলোও কাজ করছে। সংসদে সেই তথ্য তুলে ধরেন তিনি।