Logo
নোটিশ :

আমাদের ভুবনে আপনাকে স্বগতম>>তথ্য নির্ভর সংবাদ পেতে  সাথে থাকুন  ধন্যবাদ।

দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ভঙ্গুর প্রমাণিত হয়েছে: ফখরুল

উখিয়া কন্ঠ  ডেস্ক / ২৩৩ বার
আপডেট সময় : সোমবার, ২২ জুন, ২০২০

 

 

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন- করোনায় প্রমাণিত হয়েছে দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ভঙ্গুর হয়ে গিয়েছে। আমাদের চিকিৎসকদের চিকিৎসা করার জন্য সুরক্ষা দেয়ার সুযোগটুকু সরকার সৃষ্টি করতে পারেনি। অক্সিজেনের জন্য এখন মানুষ পাগল, কোথায় তা পাওয়া যাবে। সিলিন্ডার নেই, আইসিইউ নেই, ভেন্টিলেটার নেই। অথচ প্রথম থেকেই বলা হয়েছে যে, এসব জরুরিভিত্তিতে যোগাড় করা হোক, ব্যবস্থা করা হোক। সরকার এসবের দিকে কোনো নজর দেননি। তারা ব্যস্ত কিভাবে মেগা প্রকল্প তৈরি করবে এবং মেগালুট করবে।সোমবার (২২ জুন) দুপুরে বিএনপির সমর্থিত চিকিৎসকদের সংগঠন ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ-ড্যাবের আয়োজনে এক ভার্চুয়াল সভায় মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন।এই সংগঠনটির উদ্যোগে করোনাভাইরাস সংক্রমণে আক্রান্ত চিকিৎসক ও চিকিৎসকদের পরিবারকে সহযোগিতায় অ্যাম্বুলেন্স সেবা সার্ভিস, মুমূর্ষু রোগীদের জন্য অক্সিজেন সিলিন্ডার সরবারহ, প্লাজমা ডোনার তালিকা প্রণয়ন, কোভিড-১৯ আক্রান্তদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার ব্যবস্থা কার্যক্রম উপলক্ষে এই সভা হয়। বিএনপি মহাসচিব ইন্টারনেটের মাধ্যমে বক্তব্যের পর ড্যাবের মগবাজার অফিসের সামনে থাকা অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিসসহ অন্যান্য কর্মসূচির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।
করোনাভাইরাস সংক্রামণ মোকাবেলায় স্বাস্থ্যখাতের পরিবর্তে সরকার ‘মেগা প্রকল্প’কে অগ্রাধিকার দিচ্ছে বলে অভিযোগ করেন মির্জা ফখরুল।
তিনি বলেন, সরকার দেশের স্বাস্থ্যখাতকে কোনো প্রাধান্য দেয় না। তাদের প্রধান্য একটাই যে, তারা মেগা প্রকল্প তৈরি করবে এবং মেগালুট করবে। দুর্নীতির একটা মহোৎসব চলছে।
তিনি বলেন, ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর প্রতিষ্ঠানটির উদ্ভাবিত কিট এখনো সরকার অনুমোদন দেয়নি। সব কিছুর পেছনে তাদের (সরকার) যে উদ্দেশ্যটা কাজ করেছে বা করছে তা হচ্ছে দুর্নীতি। জনগণের সমস্যা সমাধান করার কেনো কাজ তারা করতে চাননি কখনো এবং করবেনও না।বিএনপি মহাসচিব বলেন, একটা কথা আমাদের মনে রাখতে হবে- এটা একটা একদলীয় ফ্যাসিস্ট সরকার। তারা কখনোই জনগণের কল্যাণের জন্য কাজ করে না। গণতান্ত্রিক একটি সরকার, গণতান্ত্রিক একটা রাষ্ট্র ব্যবস্থা এটাই একমাত্র এই ধরনের বিশ্ব মহামারীকে মোকাবেলা করার উপযুক্ত হতে পারে। আসুন এই দুঃসময়ে আমরা জনগণের পাশে দাঁড়াই। জনগণকে সঙ্গে নিয়ে মানুষকে বাঁচানোর চেষ্টা করি, জীবিকাকে বাঁচানোর চেষ্টা করি। একই সঙ্গে এই রাষ্ট্র যেন একটি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র হতে পারে তার জন্য আমরা সবাই কাজ করি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর