Logo
নোটিশ :

আমাদের ভুবনে আপনাকে স্বগতম>>তথ্য নির্ভর সংবাদ পেতে  সাথে থাকুন  ধন্যবাদ।

চকরিয়া পৌরসভা ও ডুলাহাজারার রেড জোন ১২ ওয়ার্ডে ফের লকডাউন

চকরিয়া প্রতিনিধি। / ২৬৭ বার
আপডেট সময় : শনিবার, ৬ জুন, ২০২০

 

কক্সবাজারের চকরিয়া পৌরসভা (পুরো এলাকা) এবং ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ২, ৩ ও ৮ নম্বর ওয়ার্ডকে রেড জোন চিহৃিত করে কঠোর লকডাউনের আওতায় নিয়ে আসা হয়েছে। করোনার বিস্তার ঠেকাতে আজ মধ্যরাত থেকে আগামী ২১ জুন রাত ১২ টা পর্যন্ত ১৪ দিন কঠোর লকডাউনের আওতায় থাকবে।
কোভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে জেলা ও উপজেলা কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক এসব এলাকায় বিশেষ ব্যবস্থা হিসেবে রেড জোন হিসেবে শনাক্ত করা হয় চকরিয়া পৌরসভার ৯ টি ও ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ৩ ওয়ার্ডকে।আজ শনিবার বিকালে বিজ্ঞপ্তি জারি করে এ আদেশ দেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ শামসুল তাবরীজ।
এ ব্যাপারে চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ শামসুল তাবরীজ বলেন, করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে রেড জোন এর আওতায় পড়া এলাকায় ১৪ দিনের লকডাউনটি কার্যকর করা হবে অনেকটা কারফিউর মতোই। এই সময়ে সর্বসাধারণকে কার্যত বাড়িতেই অবস্থান করতে হবে। কেউ বাহির থেকে আসলেও তাদেরকে আইনের মুখোমুখি হতে হবে। লকডাউন চলাকালীন কর্মহীন যেসব শ্রমজীবী পরিবার রয়েছে তাদের তালিকা করে বাড়ি বাড়ি খাদ্যসহায়তা পৌঁছে দেওয়া হবে।
কোভিড-১৯ মোকাবেলায় দায়িত্বপ্রাপ্ত বেসরকারি গাড়ি চলাচলে জেলা প্রশাসনের অনুমতি গ্রহণ করবে। অ্যাম্বুলেন্স, রোগী পরিবহন, স্বাস্থ্যসেবা প্রদানকারী ব্যক্তিবর্গের (অনডিউটি) পরিবহন, কোভিড-১৯ মোকাবেলা ও জরুরী সেবা প্রদানকারী কর্তৃপক্ষের গাড়ি এর আওতার বাইরে থাকবে।
এ ছাড়া সকল ব্যক্তিগত ও গণপরিবহন বন্ধ থাকবে। নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য বহনকারী হালকা ও ভারী যানবাহন রাত ৮টা থেকে সকাল ৮টা পর্যন্ত চলাচল করতে পারবে।
সকল প্রকার দোকান, মার্কেট, হাট-বাজার, ফুটপাতের দোকান ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে। কেবলমাত্র শনিবার, সোমবার ও বুধবার কাঁচাবাজার এবং শুক্রবার, শনিবার, সোমবার ও বুধবার মুদি দোকান স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত আকারে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত খোলা যাবে। ঔষুধের দোকান এর আওতার বাইরে থাকবে।
সকল হাসপাতাল, চিকিৎসাসেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ও কোভিড-১৯ মোকাবেলায় পরিচালিত ব্যাংকিং সেবা প্রদান এর আওতার বাইরে থাকবে। রেড জোনে জরুরী সংবাদ সংগ্রহের জন্য নির্বাচিত সংবাদকর্মী এবং কোভিড-১৯ মোকাবেলায় রেডজোনে কাজ করার নিমিত্তে নিয়োজিত স্বেচ্ছাসেবীদের উপজেলা নির্বাহী অফিসার, চকরিয়া কর্তৃক ছবিযুক্ত বিশেষ পরিচয় পত্র দৃশ্যমান অবস্থায় গলায় ঝুলানো থাকা সাপেক্ষে কাজ করার অনুমতি দেওয়া হবে।
অভিযোগ উঠেছে কক্সবাজার সহ বিভিন্ন জেলা-উপজেলায় ঘোষিত রেড জোনে রিপোর্ট সংগ্রহে সংশ্লিষ্ট এলাকার প্রেসক্লাব সংবাদকর্মীদের পাস দেয়ার সিদ্ধান্ত নিলেও ব্যতিক্রম শুধু চকরিয়ায়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর